শুক্রবার, ০৭ মে ২০২১, ০৩:৪৪ অপরাহ্ন
Bengali Bengali English English
সদ্য পাওয়া :

দেওয়ানগঞ্জে আশ্রয়ন প্রকল্পের ঘরে দুবৃত্তদের হামলা, ভাঙচুর

স্টাফ রিপোর্টার, জামালপুর
  • প্রকাশের সময় : শনিবার, ১ মে, ২০২১
  • ৫৫ জন সংবাদটি পড়ছেন

জামালপুরঃ জামালপুরের দেওয়ানগঞ্জে আশ্রয়ন প্রকল্প-২ এর আওয়তায় সরকারি জমিতে মুজিবশতবর্ষ উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রীর উপহার ভূমিহীন ও গৃহহীনের জন্য নির্মাণাধীন ঘর ভাংচুর ও মালামাল চুরি করেছে দুর্বৃত্তরা।

২৯ এপ্রিল রাতে উপজেলার সীমান্তবর্তী ডাংধরা ইউনিয়নের পূর্ব নিমাইমারী এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় সুত্রে জানা যায়, ডাংধারা ইউনিয়নের কারখানা মৌজাধীন ০১ নম্বর খতিয়ানে ৭৩৪৯ নম্বর দাগে ২ একর ৯২ শতাংশ জমি দীর্ঘদিন যাবত নিমাইমারী গ্রামের মৃত. আকছের আলীর ছেলে শরবত আলী ভূমিহীন নামে জবর দখল করে আসছিলেন। ওই জমি আশ্রয়ন প্রকল্প-২ কাজ শুরু হলে সরকারি জমি কথিত ভূমিহীন শরবত আলীর জবর দখল করা ২ একর ৯২ শতাংশ জমি উদ্ধার করেন দেওয়ানগঞ্জ সহকারী কমিশনার (ভূমি) আসাদুজ্জামান।

উদ্ধার করা সেই জমিতেই ঘর নির্মানের সিদ্ধান্ত নেয় স্থানীয় উপজেলা প্রশাসন।

উদ্ধার করা জমিতে ভূমিহীন ও গৃহহীনদের গৃহনির্মাণ কাজ শুরু করলে প্রথম থেকেই শরবত আলী ও তার লোকজন স্থানীয় কতিপয় নেতা কাজে বাধা দিতে থাকেন । এক পর্যায়ে গত ২৮ এপ্রিল অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মো. রফিকুল ইসলাম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন এবং প্রধানমন্ত্রীর উপহার ভূমিহীনদের জন্য ঘর নির্মাণ কাজে যেন কেউ বাধা প্রদান না করে নির্মাণ কাজ করতে নির্দেশনাও দেন।

কাজ চলা অবস্থায় ২৯ এপ্রিল রাতে দুর্বৃত্তরা ৭টি নির্মাণাধীন ঘরের ভিটির পিলার ভাংচুর এবং পানির পাম্প মোটর ও ৩০০ ফুট পাইপ চুরি করে নিয়ে যায়। এতে প্রায় ২ লাখ টাকা ক্ষতি হয়েছে বলে জানান কর্মরত নির্মাণ কাজের সহকারী মিস্ত্রি রফিকুল।

২৯ এপ্রিল রাতে পাহারদার কড়া নজর রাখলেও সাহরির সময় সাহরি খেতে গেলে দুর্বৃত্তরা বিদ্যুৎ লাইন বিছিন্ন করে পানি উঠানোর পাম্প মেশিন ও পাইপ চুরি করে নিয়ে যায়।

স্থানীয় ডাংধরা ইউপি চেয়ারম্যান শাহ মো. মাসুদ  জানান, সরকারি জমি উদ্ধার করে প্রধানমন্ত্রীর উপহারের গৃহনির্মাণ কাজ চলছে। এ কাজে বাধা দিয়ে আসছে শরবত আলীসহ আরও কয়েকজন। ঘর ভাংচুর ও মালামাল চুরির ঘটনায় নিন্দা এবং প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে প্রশাসনের প্রতি দাবি জানান তিনি।

৩০ এপ্রিল দুপুরে ঘটনাস্থল পরির্দশন করেছেন সানন্দবাড়ী পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ জোয়াহের হোসেন খাঁন।

দেওয়ানগঞ্জ মডেল থানার ওসি মুহাম্মদ মহব্বত কবীর ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

পছন্দ হলে শেয়ার করুন

এ ধরনের আরও সংবাদ
সাপ্তাহিক বকশীগঞ্জ
        Develop By CodeXive Software Inc.
themesba-lates1749691102