মঙ্গলবার, ১৭ মে ২০২২, ০৩:০৭ পূর্বাহ্ন
Bengali Bengali English English

বকশীগঞ্জে কমিউনিটি ক্লিনিক বন্ধ, দুর্ভোগে তৃণমুলের মানুষ

সংবাদদাতার নামঃ
  • প্রকাশের সময় : শনিবার, ২০ জানুয়ারী, ২০১৮
  • ১২৮৩ জন সংবাদটি পড়ছেন

বকশীগঞ্জ প্রতিনিধি
সিএইসসিপিদের কেন্দ্রয়ী সংগঠনের নির্দেশ অনুযায়ী জামালপুরের বকশীগঞ্জে কমিউনিটি হেল্থ কেয়ার প্রোভাইডার (সিএইচসিপি)রা কর্ম বিরতি পালন করেছে। এতে বন্ধ হয়ে যায় বহুল আলোচিত কমিউনিটি ক্লিনিক। হঠাৎ করে কমিউনিটি ক্লিনিক বন্ধ হওয়ায় দুর্ভোগে পরেছে তৃণমুলের মানুষ।

শনিবার সকাল থেকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স চত্বরে চাকুরী জাতীয়করণের দাবিতে এ কর্ম বিরতি পালন করে সিএইচসিপিরা।
কর্ম বিরতি পালনকালে অবিলম্বে তাদের চাকরী জাতীয়করণের দাবিতে আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন সিএইচসিপি বকশীগঞ্জ শাখার সভাপতি মোশাররফ হোসেন, সাধারণ সম্পাদক শামসুল আলম সাদা, সিএইচসিপি দেলোয়ার হোসেন, ওমর ফারুক প্রমুখ।
এদিন বকশীগঞ্জ উপজেলার ২৫ টি কমিউনিটি ক্লিনিকের সিএইচসিপিরা কর্ম বিরতিতে অংশ নেন।

পরে চাকুরী জাতীয়করণের

দাবি সম্বিলিত এক স্মারক লিপিও পেশ করা হয়।

সিএইচসিপিদের কর্ম বিরতি প্রসঙ্গে বকশীগঞ্জ স্বাস্থ্য ও পঃপঃ কর্মকর্তা ডাঃ নুরুল আলম জানান, বকশীগঞ্জে সকল কমিউনিটি ক্লিনিক গুলো বন্ধ রয়েছে। বন্ধ হওয়া ক্লিনিক গুলোর তালিকা উদ্ধর্তণ কর্তপক্ষকে জানানো হয়েছে।
এদিকে সিএইচসিপি দের সংগঠনের বকশীগঞ্জ উপজেলা শাখার সভাপতি মোশারফ হোসেন জানান, ২০১১ সাল থেকে আমরা একই বেতনে চাকুরী করে আসছি। আমাদের বাৎসরিক কোন ইনক্রিমেন্টসহ অন্যান্য কোন সুযোগ সুবিধা নেই। অথচ স্বাস্থ্য খাতে আমরাই সর্বত্মোক সেবা প্রদান করে, দেশে বিদেশে বাংলাদেশের ভাবমুর্তি উজ্জল করেছি। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নিকট দাবী আমাদের মাত্র ১৪হাজার সিএইসসিপি, যাদের বেশিরভাগই মুক্তিযোদ্ধা সন্তান। আমাদের চাকুরী জাতীয়করণে তিনি যথাযথ ব্যবস্থা নিবেন।
হঠাৎ করে কমিউনিটি ক্লিনিক বন্ধ হওয়ায় চিকিৎসা সেবা থেকে বঞ্চিত হচ্ছে তৃনমুলের মানুষ। দ্রুত কমিউনিটি চালু করারও দাবী জানান এলাকাবাসীসহ সেবা নিতে আসা রোগীরা।

পছন্দ হলে শেয়ার করুন

এ ধরনের আরও সংবাদ
সাপ্তাহিক বকশীগঞ্জ
        Develop By CodeXive Software Inc.
themesba-lates1749691102