শনিবার, ২৪ অক্টোবর ২০২০, ১১:৩৯ অপরাহ্ন
Bengali Bengali English English

বকশীগঞ্জে পুলিশ দেখেই দৌড়, স্টোকে আলু ব্যবসায়ীর মৃত্যু

সংবাদদাতার নামঃ
  • প্রকাশের সময় : শনিবার, ১৮ এপ্রিল, ২০২০
  • ২১১৮ জন সংবাদটি পড়ছেন

স্টাফ রিপোর্টারঃ  জামালপুরের বকশীগঞ্জে স্থানীয় নইম মিয়ার বাজার এলাকায় উপজেলা নির্বাহী অফিসারের গাড়ীর সাইরেন ও পুলিশ দেখেই দৌড়দৌড়ি শুরু করার এক পর্যায়ে স্টোকে মারা যায় সিরাজুল ইসলাম (৫০) নামে এক আলু ব্যবসায়ী মারা যায়।
শনিবার সকাল ১১টার দিকে বকশীগঞ্জ নইম মিয়ার বাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।
স্থানীয়রা পুলিশের বিরুদ্ধে কথা বললেও তার পরিবারের সদস্যরা বিষয়টি অস্বীকার করে জানান, সে দীর্ঘদিন যাবত হার্টের সমস্যায় ভুগতেছিলেন।
ঘটনার সময় পুলিশ আতঙ্কে স্টোক করে মাটিতে পরে যায়, অতপর বকশীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার আ.স.ম জামশেদ খোন্দাকার দ্রুত সিরাজুলকে উদ্ধার করে বকশীগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠিয়ে দেয় । পরে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষনা করে।


বকশীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্মকর্তা ডাঃ প্রতাপ নন্দী জানান, তার শরীরে কোন অঘাতের চিহ্ন নেই, তিনি স্টোকেই মারা গেছেন।
এদিকে এই ঘটনাটি অন্যদিকে প্রভাবিত কারার লক্ষ্যে মিছিল বের করার চেষ্টা করলে শাহিন আল আমিন নামের  এক সংবাদিককে গনধোলাই দেয় স্থাণীয়রা। পরে বকশীগঞ্জ পৌরসভার মেয়র নজরুল ইসলাম সওদাগর ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে সাংবাদিক শাহিনকে উদ্ধার করে।
পরে বকশীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার আ.স.ম জামশেদ খোন্দকার, থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শফিকুল ইসলাম, বকশীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক সাইফুল ইসলাম বিজয়, মেয়র নজরুল ইসলাম সওদাগার, কামালপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোস্তুফা কামাল উপস্থিতিতে পরিবারকে মৃতদেহ হস্তান্তর করে।
বকশীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার আ.স.ম জামশেদ খোন্দকার জানান, সামাজিক নিরাপত্তা নিশ্চিত করার লক্ষ্যে অভিযান চালানোর সময় পুলিশ দেখেই সে দৌড়ে পরে যায়। পরে তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে আনার পথেই মারা যায়।

পছন্দ হলে শেয়ার করুন

এ ধরনের আরও সংবাদ
সাপ্তাহিক বকশীগঞ্জ
        Develop By CodeXive Software Inc.
themesba-lates1749691102