শুক্রবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২০, ০১:৪০ অপরাহ্ন
Bengali Bengali English English

বকশীগঞ্জ সদর চেয়ারম্যানের আকাশ ছোঁয়া দুর্নীতিতে অসহায় মানুষ

সংবাদদাতার নামঃ
  • প্রকাশের সময় : শনিবার, ২১ ডিসেম্বর, ২০১৯
  • ৭৮০ জন সংবাদটি পড়ছেন
প্রকল্প সভাপতি ও চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অভিযোগ দিচ্ছেন শ্রমিকরা

স্টাফ রিপোর্টারঃবকশীগঞ্জ সদর ইউনিয়ন চেয়ারম্যান (ভারপ্রাপ্ত) এলবাট মিয়ার দুর্নীতির কারনে অসহায় মানুষ।

২০১৩ সালে ১৩ ফেব্রুয়ারী বকশীগঞ্জ পৌরসভা গঠন হওয়ায় সদর ইউনিয়ন সিংহভাগ জায়গাই বকশীগঞ্জ পৌরসভায় অন্তভুক্ত হয়।

এছাড়া বকশীগঞ্জ সদর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ফখরুজ্জামান মতিন পৌর নির্বাচনে অংশ নেওয়ায় চেয়ারম্যান পদটি ‍শুন্য হলে ইউপি সদস্য জাহাঙ্গীর হাসানকে দায়িত্ব দেওয়া হয়।

চলতি বছর ৩ সেপ্টম্বর জাহাঙ্গীর হাসান মৃত্যু বরণ করলে ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান হিসাবে একমাত্র ইউপি সদস্য এলবাট মিয়াকে দায়িত্ব দেওয়া হয়। দায়িত্ব পেয়েই একের পর এক দুর্নীতি করে যাচ্ছেন এলবাট মিয়া।

চলতি অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচি ১ম পর্যায়ে কাজে ব্যাপক অনিয়ম করে যাচ্ছেন তিনি। নির্ধারিত শ্রমিকের অনেক কম সংখ্যক কাজ করাচ্ছেন বলেও সরজমিনে পাওয়া যায়।

এছাড়া যত শ্রমিক রয়েছে তাদের  জব কার্ড দিতে টাকা দাবী করেছেন বলে অভিযোগ উঠেছে।২০১৯-২০২০ অর্থবছরে অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচি (ইজিপিপি) ১ম পর্যায়ে প্রকল্পের সরেজমিনে দেখা গেছে বকশিগঞ্জ সদর ইউনিয়নের পশ্চিম সূর্যনগর সর্দারপাড়া মোড় হতে পশ্চিম দিকে খালপাড় পর্যন্ত রাস্তার ৮৪ জন শ্রমিক কাজ করার কথা থাকলেও সেখানে কাজ করছে মাত্র ৪৮ জন। শ্রমিকদের মাঝে নারী ৫১ জনের স্থলে ৩৩ জন, পুরুষ ৩৩ জনের স্থলে মাত্র ১৫ জন রয়েছে।

শ্রমিকদের কোন রেজিস্ট্রার পাওয়া যায়নি। তাদের নেই জব কার্ড। শ্রমিকরা অভিযোগ করেছেন তাদের জব কার্ডের জন্য প্রতিজনের নিকট প্রকল্প সভাপতি ২শ টাকা দাবী করেছেন। ২শ টাকা না দিলে জব কার্ড দেওয়া হবে না বলে উপস্থিত শ্রমিকরা জানিয়েছেন।

প্রকল্প সভাপতি ও বকশীগঞ্জ সদর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ এলাবাট মিয়াকে চ্যালেঞ্চ ছুড়ে দিয়ে সাংবাদিকদের জানান, আপনার যা মনে চায়  লেখেন।

প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহনের কথা উল্লেখ করে উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মোঃ হাসান মাহবুব খান জানান, এ ব্যাপারে কারণ দর্শানোর নোটিশ দেবো এবংতদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

প্রকল্পের অনিয়ম ও দূর্নীতির বিষয়গুলো নিয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার আ.স.ম জামশেদ খোন্দকার জানান, প্রকল্প কাজে অনিয়ম তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

পছন্দ হলে শেয়ার করুন

এ ধরনের আরও সংবাদ
সাপ্তাহিক বকশীগঞ্জ
        Develop By CodeXive Software Inc.
themesba-lates1749691102