শুক্রবার, ২৭ নভেম্বর ২০২০, ০১:৪৮ অপরাহ্ন
Bengali Bengali English English
সদ্য পাওয়া :
বকশীগঞ্জ উপজেলা বিএনপির কমিটি॥ মানিক-আহ্বায়ক, মতিন- সদস্য সচিব বকশীগঞ্জ পৌর বিএনপি ॥ প্রিন্স-আহ্বায়ক, গামা-সদস্য সচিব বিডিএফডির উদ্যোগে আবুল কালাম আজাদ মেডিসিনের রোগ মুক্তি কামনায় দোয়া মাহফিল দেওয়ানগঞ্জে ওসি হিসাবে যোগ দিলেন মহব্বত কবির বশেফমুবিপ্রবি হবে আন্তর্জাতিক মানের গবেষণাভিত্তিক বিশ্ববিদ্যালয় : উপাচার্য সামসুদ্দিন বকশীগঞ্জে বিদ্যুৎ পৃষ্ঠে আহত একজনের মৃত্যু বকশীগঞ্জে যত্রতত্র মাছ বাজার ॥ শিক্ষার্থী ও পথচারীদের দুর্ভোগ বকশীগঞ্জে মাস্ক না পরায় ভ্রাম্যমাণ আদালতের জরিমানা বকশীগঞ্জ উপজেলা আ’লীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক শফিকুল ইসলামের বিরুদ্ধে অপপ্রচার পাক-ভারত সীমান্ত গোলাবর্ষণে অন্তত ১০ জনের মৃত্যু

বকশীগঞ্জে যত্ন প্রকল্পে শুরুতেই দুর্নীতি

সংবাদদাতার নামঃ
  • প্রকাশের সময় : রবিবার, ৮ ডিসেম্বর, ২০১৯
  • ১২৫৫ জন সংবাদটি পড়ছেন
স্টাফ রিপোর্টারঃ জামালপুরের বকশীগঞ্জে শুরু হতে না হতেই দুর্নীতি শুরু হয়ে গেছে। ইউনিয়ন পরিষদের সদস্যরা প্রতিটি উপরকার ভোগীদের নিকট মোটা অংকের টাকার নেওয়ার কথা এখন মুখে মুখে।
জন্ম নিবন্ধন ও টিকা কার্ডের জন্য এখন ইউনিয়ন পরিষদের তথ্য কেন্দ্রে পড়েছে উপচে পড়া ভীর। আর স্থানীয় হাসপাতাল ও কমিউনিটি ক্লিনিকসহ স্বাস্থ্য সেবা কেন্দ্র গুলোতেও টিকা কার্ড নেওয়ার জন্য ঘুরছে। আর এসব সুবিধা দেওয়ার কথা বলে একটি দালাল চক্র মোটা অংকের টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে।
যত্ন প্রকল্পের বকশীগঞ্জ অফিস সুত্রে জানাযায়, বকশীগঞ্জ উপজেলার ৭টি ইউনিয়নের প্রতিটি ইউনিয়নের জন্য ১ হাজার ৩৫০টি শিশু ও গর্ভবতী মহিলা এই সুযোগের আওতায় আসবেন। প্রকল্প কাজ শুরু হওয়ার আগেই স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা উপকার ভোগীদের নিকট টাকা নেওয়ার গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে।
স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের অধীনস্থ স্থানীয় সরকার বিভাগ অতিদরিদ্রদের জন্য আইএসপিপি-যত্ন প্রকল্পের মাধ্যমে আয় সহায়ক কর্মসূচী গ্রহণ করেছে। এ প্রকল্পের আওতায় রংপুর ও ময়মনসিংহ বিভাগের ৭টি জেলার ৪৩টি উপজেলায় অতিদরিদ্র অন্তঃসত্ত্বা নারী, শিশু ও তাদের মাদের সুনির্দিষ্ট সেবা গ্রহণের বিপরীতে নগদ অর্থ প্রদান করা হবে। এই কর্মসূচীর উপকারভোগী হচ্ছে অতিদরিদ্র পরিবারের অন্তঃসত্ত্বা নারী, ৪ বছরের কম বয়সী প্রথম ও দ্বিতীয় শিশু এবং তাদের মা।
প্রকল্পের উদ্দেশ্যঃ মূল উদ্দেশ্য হলো নির্বাচিত ৪৩টি উপজেলায় অতিদরিদ্র অন্তঃসত্ত নারী এবং ০ থেকে ৬০ মাস বয়সী শিশুর মাদের সুনির্দিষ্ট সেবা গ্রহণের বিপরীতে নগদ অর্থ প্রদানের মাধ্যমেঃ ক) শিশুদের পুষ্টি ও মনোদৈহিক বিকাশ সাধন খ) সামাজিক নিরাপত্তা বেষ্টনী কার্যক্রম পরিচালনায় ইউনিয়ন পরিষদের সক্ষমতা বৃদ্ধি।
এই প্রকল্পের আওতায় প্রতিটি শিশু ৩ মাসে কমপক্ষে ৩টি পুষ্টি বিষয়ক কাউন্সিলে অংশ গ্রহণ ও প্রতিটি গর্ভবতী মহিলা গর্ভাবস্থায় ৪বার প্রসব পুর্ব পরীক্ষা (এনএনসি) করতে হবে। প্রতিটি পরীক্ষার জন্য ১ হাজার ও ৪টি পরীক্ষায় অংশ নিলে আরও ১ হাজার সহ মোট ৫ হাজার পাবেন।
শিশুদের ক্ষেত্রে তিনমাসে ৩টি কাউন্সিলে অংশ নিলে প্রতিমাসে ৭০০ টাকা করে পাবেন। ৪৮ মাস হওয়ার সাথে সাথে স্বয়ংক্রিয়ভাবে এই সুযোগ থেকে বাদ পড়ে যাবেন।

পছন্দ হলে শেয়ার করুন

এ ধরনের আরও সংবাদ
সাপ্তাহিক বকশীগঞ্জ
        Develop By CodeXive Software Inc.
themesba-lates1749691102