Blog Image

বকশীগঞ্জে সন্তানের গলায় ছুড়ি ধরে মাকে ধর্ষণ

স্টাফ রিপোর্টার ॥ জামালপুরের বকশীগঞ্জে সন্তানের গলায় ছুড়ি ধরে মাকে ধর্ষণ করা হয়েছে। ধর্ষণের বিচার চেয়ে সমাজপতিদের দ্বারে দ্বারে ঘুরছে ধর্ষিতা।
বৃহস্পতিবার দিবাগত ভোর সাড়ে ৪টার দিকে বকশীগঞ্জ পৌর শহরের সীমারপাড় এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।
এ ঘটনার পর থেকে ধর্ষক জামান পলাতক রয়েছে।
ধর্ষিতা মা জানান, স্বামী ঢাকায় রিক্সা চালায়। ৫বছরের ১ ছেলে ও ২ বছরের একটি মেয়ে পৌরশহরের সীমারপাড়া এলাকায় মিস্টারের বাড়িতে থাকে। বৃহস্পতিবার ভোরে ঘরের দরজা ভেঙ্গে ঢুকে জামান। পরে হাতে ছুড়ি নিয়ে ২ বছরের মেয়ের গলায় ধরে। চিৎকার বা না করলে মেয়েকে হত্যা করবে বলে ভয় দেখায়। পরে জামান তাকে ধর্ষণ করে বের হয়ে যায়।


এ সময় ধস্তধস্তির শব্দ শোনে বাড়ীর মালিক মিষ্টার এগিয়ে এলে দ্রুত ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়।
ঘটনা জানাজানি হওয়ার পর স্বামী ঢাকা থেকে ফিরে ধর্ষিতা স্ত্রীকে বাড়ী থেকে বের করে দিলে স্ত্রী বিচারের আশায় দ্বারে দ্বারে ঘুরছে।
স্থানীয় বকশীগঞ্জ উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান জাহিদুল জুমান তালুকদার বিষয়টি নিয়ে উভয় পক্ষকে ডাকলেও ধর্ষক পরিবার থেকে কোন সাড়া দেয়নি।
এ বিষয়ে বকশীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাহাবুবুল আলম জানান, এখন পর্যন্ত এ বিষয়ে অভিযোগ নিয়ে কেউ থানায় আসেনি। থানায় এলে অবশ্যই মামলা নেওয়া হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন..

এ ধরনের আরও খবর