শনিবার, ২৪ অক্টোবর ২০২০, ০৯:১৫ পূর্বাহ্ন
Bengali Bengali English English
সদ্য পাওয়া :
বকশীগঞ্জে যুবকের ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার বকশীগঞ্জ পৌর আওয়ামী লীগের আহবায়ক কমিটি বাতিল! দুই মামলায় রাশেদ চিশতির জামিন দেওয়ানগঞ্জে বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রীর ছবি ভাঙচুরের ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানালেন অধ্যাপক সুরুজ্জামান বকশীগঞ্জে পৌর আওয়ামীলীগ ও ছাত্রলীগের সংর্ঘষ ।। আহত অর্ধশতাধিক বকশীগঞ্জে নারী ও শিশু ধর্ষণ প্রতিরোধে বিট পুলিশিং সমাবেশ অনুষ্ঠিত দেওয়ানগঞ্জে বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রীর ছবি ভাঙচুর বকশীগঞ্জে এসডিজি অর্জনে জেলা নেটওয়ার্কের ষান্মাসিক সভা অনুষ্ঠিত সরিষাবাড়ীতে পুকুরে ডুবে ভাই বোনের মৃত্যু বকশীগঞ্জে ইলিশ রক্ষায় নিজেই মাঠে নামলেন ইউএনও মুনমুন জাহান লিজা

জামালপুরে সাংবাদিকের উপর হামলা, থানায় মামলা

সংবাদদাতার নামঃ
  • প্রকাশের সময় : বুধবার, ২৯ মে, ২০১৯
  • ৬০৫ জন সংবাদটি পড়ছেন

নিজস্ব প্রতিবেদক, জামালপুর

জামালপুর সদর সাব-রেজিস্ট্রার কার্যালয়ে জাল কাগজপত্রের মাধ্যমে জমির দলিল নিবন্ধনের তথ্য সংগ্রহ করতে গিয়ে কালের কণ্ঠের জামালপুর প্রতিনিধি ও বাংলারচিঠিডটকম এর নির্বাহী সম্পাদক মোস্তফা মনজু নির্যাতনের শিকার হয়েছেন। জামালপুর পৌরসভার ২ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর ও স্ট্যাম্প ভেন্ডার হাসানুজ্জামান খান রুনুর নেতৃত্বে কয়েকজন দলিল লেখক ও তাদের সহকারীরা তাকে মারধর করেন। এতে তিনি গুরুতর আহত হয়েছেন। ২৮ মে দুপুরে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় জেলায় কর্মরত সাংবাদিকদের মাঝে তীব্র ক্ষোভ বিরাজ করছে।

জামালপুর সদর সাব-রেজিস্ট্রার কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, দলিল লেখক হাবিবুর রহমান জামালপুর শহরের দেওয়ানপাড়া এলাকার মৃত জোবায়দুর রহমানের ছেলে মো. রফিকুল ইসলামের পক্ষে সিংহজানি মৌজার সংশোধিত খতিয়ান ১১৪৩২ মূলে সোয়া তিন শতাংশ জমি নিবন্ধনের জন্য জমির দলিল, ৭৭ হাজার টাকার পে-অর্ডার, নামজারি, ডিসিআর কপি ও খাজনার রশিদসহ সদর সাব রেজিস্ট্রারের কাছে দাখিল করেন।

২৭ মে সদর সাব রেজিস্ট্রারের এজলাসে ওই জমির কাগজপত্র যাচাই-বাছাইকালে দলিলের সাথে দাখিলকৃত জমির প্রয়োজনীয় কাগজপত্র ভুয়া বলে প্রতীয়মান হয়। এ সময় সদর সাব রেজিস্ট্রার ৭৭ হাজার টাকার পে-অর্ডার, ভুয়া নামজারি, ভুয়া ডিসিআর কপি ও ভুয়া খাজনা রশিদসহ দলিলটি জব্দ করেন। এই জালিয়াতির ঘটনার সাথে জড়িত দলিল লেখক মো. হাবিবুর রহমানসহ সংশ্লিষ্টদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়ার বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

সাংবাদিক মোস্তফা মনজু এই জালিয়াতির বিষয়ে ২৮ মে দুপুর ২টার দিকে তথ্য সংগ্রহ করতে ওই কার্যালয়ে যান। সদর সাব রেজিস্ট্রারের কাছ থেকে বিষয়টির সত্যতা যাচাই ও প্রয়োজনীয় তথ্য সংগ্রহ শেষে মোস্তফা মনজু সদর সাব-রেজিস্ট্রার চত্বরে ওই দলিল লেখক হাবিবুর রহমানের বক্তব্য নিতে যান।

বক্তব্য নেয়ার সময় জামালপুর পৌরসভার ২ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর মো. হাসানুজ্জামান খান ওরফে রুনু ও তার ভাতিজা তুহিন খান, দলিল লেখক হাবিবুর রহমান ও দলিল লেখকের সহকারী মো. উকিল মিয়াসহ ৭-৮ জন একযোগে মোস্তফা মনজুকে কিলঘুষি ও লাথি মারেন। এতে তিনি গুরুতর আহত হন। তারা তার গায়ের শার্ট ছিঁড়ে ফেলে। হামলাকারীদের একজন তার মোবাইল ফোন সেট ও ক্যামেরা কেড়ে নেয়। তারা মোবাইল সেট সিস্টেম ফরমেট করে তথ্য ও প্রয়োজনীয় ফোন নম্বর মুছে দেয়।

এদিকে সাংবাদিককে মারধরের খবর পেয়ে সদর থানা পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। এ ঘটনাটি দ্রুত সাংবাদিকদের মধ্যে ছড়িয়ে পড়লে সবাই ওই কার্যালয়ে উপস্থিত হন। পরে বিকেলে জামালপুর প্রেসক্লাবে এক জরুরি সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় বক্তব্য রাখেন জামালুপর প্রেসক্লাবের সভাপতি হাফিজ রায়হান সাদা ও সাধারণ সম্পাদক লুৎফর রহমানসহ, সাবেক সভাপতি ও দৈনিক জনকণ্ঠের সাংবাদিক আজিজুর রহমান ডল, বিটিভির সাংবাদিক মোস্তফা বাবুল, সময় টিভির সাংবাদিক জাহাঙ্গীর আলম, বাংলারচিঠিডটকম এর সম্পাদক জাহাঙ্গীর সেলিম প্রমুখ। তারা মারধরের তীব্র প্রতিবাদ ও দ্রুত সময়ের মধ্যে সকল অপরাধীদের গ্রেপ্তারের দাবি জানান।

এ ঘটনায় রাতে জামালপুর সদর থানায় একটি মামলা দায়ের হয়েছে।

পছন্দ হলে শেয়ার করুন

এ ধরনের আরও সংবাদ
সাপ্তাহিক বকশীগঞ্জ
        Develop By CodeXive Software Inc.
themesba-lates1749691102