বৃহস্পতিবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১০:৩৫ পূর্বাহ্ন
Bengali Bengali English English

বকশীগঞ্জের জামাই বাবু যখন মন্ত্রী

সংবাদদাতার নামঃ
  • প্রকাশের সময় : রবিবার, ৬ জানুয়ারী, ২০১৯
  • ২৪১৬ জন সংবাদটি পড়ছেন
বিশেষ প্রতিনিধি
একদশ জাতীয় সংসদে জামালপুরের ৫টি আসন থেকে নির্বাচিত নেতারা মন্ত্রীত্বর স্বাদ না পেলেও বকশীগঞ্জের জামাই খ্যাত গোলাম দস্তাগীর গাজী পেয়েছেন পাট ও বস্ত্র মন্ত্রনালয়ের দায়িত্ব।
তার শ্বশুরবাড়ী জামালপুরের বকশীগঞ্জ উপজেলার বাট্টাজোড় ইউনিয়নের মাদ্রাসাবাড়ী এলাকায়।
শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন আওয়ামী লীগ সরকারের নতুন মন্ত্রিসভায় ঠাঁই পেয়েছেন গোলাম দস্তগীর গাজী (বীরপ্রতীক)।

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নারায়ণগঞ্জ-১ (রূপগঞ্জ) আসনে মহাজোট প্রার্থী নৌকা প্রতীক নিয়ে বিপুল ভোটের ব্যবধানে জয়ী হওয়া এই সংসদ সদস্যকে বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে।

তিনি একজন মুক্তিযোদ্ধা। মুক্তিযুদ্ধে অসীম সাহসিকতাপূর্ণ অবদান রাখায় গাজীকে বীরপ্রতীক খেতাবে ভূষিত করা হয়।

সমাজসেবামূলক কার্যক্রমে ভূমিকা রাখার জন্য তাকে ২০১৮ সালে আন্তর্জাতিক মাদার তেরেসা পদকে ভূষিত করা হয়।

১৯৪৮ সালে ১৪ আগস্ট নারায়ণগঞ্জ জেলায় জন্মগ্রহণ করেন গোলাম দস্তগীর গাজী। তার বাবার নাম গোলাম কিবরিয়া গাজী এবং মায়ের নাম সামসুননেছা বেগম।

গোলাম দস্তগীর পড়াশোনা শুরু করেন পুরান ঢাকার বিদ্যাপীঠে। মাধ্যমিক পাশ করার পর ভর্তি হন নটরডেম কলেজে।

১৯৭১ সালে গোলাম দস্তগীর গাজী ছাত্র থাকাকালীন সময়ে রাজনীতির সঙ্গে জড়িত ছিলেন।

তিনি মুক্তিযুদ্ধের ২নং সেক্টরে বিভিন্ন সম্মুখ যুদ্ধে বীরত্বের সঙ্গে অংশগ্রহণ করেন।

তিনি ক্র্যাক প্লাটুনের সদস্য হিসেবে প্রশিক্ষণ নেন এবং ঢাকার কয়েকটি সফল অপারেশনে অংশ নিয়েছিলেন।

মুক্তিযুদ্ধকালীন গ্যানিজ ও দাউদ পেট্রল পাম্পের অপারেশনে গোলাম দস্তগীর গাজীর ভূমিকা উল্লেখযোগ্য।

পছন্দ হলে শেয়ার করুন

এ ধরনের আরও সংবাদ
© All rights reserved © 2019 LatestNews
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themesba-lates1749691102